Web bengali.cri.cn   
'পাও মো ইউয়ানের আস্বাদXচীন-স্পেন সামুদ্রিক রেশম পথে সুস্বাদু খাবার খোঁজার ভ্রমণ' সাফল্যের সঙ্গে অনুষ্ঠিত
  2015-12-08 11:57:05  cri

গত ২৭ নভেম্বর কুয়াং চৌ শহরে অনুষ্ঠিত হলো 'পাও মো ইউয়ানের আস্বাদXচীন-স্পেন সামুদ্রিক রেশম পথে সুস্বাদু খাবার খোঁজে ভ্রমণ' শিরোনামে খাবার সংস্কৃতি বিষয়ক একটি অনুষ্ঠান। চীন আন্তর্জাতিক বেতারের পশ্চিম ইউরোপ ও লাতিন আমেরিকা অঞ্চলের সম্প্রচার কেন্দ্র, কুয়াং চৌ-এ স্পেনের কনস্যুলেট জেনারেল, china.com ওয়েবসাইট, কুয়াং চৌ'র ফান ইয়ু অঞ্চলের পা মো ইউয়ান অর্থনীতি ও উন্নয়ন কোম্পানি যৌথভাবে এর আয়োজন করেছে। প্রায় দু'শ অতিথি এতে অংশ নিয়েছেন।

এ কর্মসূচিতে সিআরআই'র উপ-সাধারণ সম্পাদক রেন ছিয়েন, কুয়াং চৌ-এ স্পেনের কনস্যুলেট জেনারেলের কন্সুলার জেনারেল মানুয়েল পুমবো, ওয়েবসাইট china.comর operational departmentর মহা তত্ত্বাবধায়ক মু সিয়াও হাং এবং কুয়াং চৌ'র ফান ইয়ু অঞ্চলের পা মো ইউয়ান অর্থনীতি ও উন্নয়ন কম্পানির পরিচালনা পরিষদের চেয়ারম্যান লিয়াং ই যৌথভাবে china.com ওয়েবসাইটে স্প্যানিশ বিভাগে খাদ্য চ্যানেল সম্প্রচার শুরুর ঘোষণা দেন। স্প্যানিশ ভাষার বিভাগ কয়েক মাসের দীর্ঘ প্রচেষ্টার পর এ প্ল্যাটফর্ম প্রতিষ্ঠা করেছে। এর লক্ষ্য হলো সারা বিশ্বের ৫০কোটি স্প্যানিশ বলা মানুষের জন্য চীনের খাবার সংস্কৃতি তুলে ধরা এবং চীন ও পশ্চিমা বিশ্বের সাংস্কৃতিক বিনিময় জোরদার করবে।

সংশ্লিষ্ট বিশেষজ্ঞ ইয়াও উয়েই চুন এ কর্মসূচি সম্পর্কে বলেন, সামুদ্রিক রেশম পথ চীনা খাবার, বিশেষ করে ক্যান্টোনিজ রান্নার সংস্কৃতির উন্নয়ন গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে থাকে। তিনি মনে করেন, খাদ্য সংস্কৃতির মাধ্যমে চীন ও পশ্চিমা বিশ্বের সাংস্কৃতিক বিনিময় সামনের দিকে এগিয়ে যাবে।

তিনি বলেন,

'চীন একটি বড় দেশ, বিভিন্ন অঞ্চলের খাবারের বিশেষ বৈশিষ্ট্য আছে। এ সংস্কৃতি প্রচুর বিদেশি মানুষকে আকর্ষণ করে। সেজন্য খাবার সংস্কৃতির বিনিময় অন্য ক্ষেত্রের বিনিময়কেও সামনে এগিয়ে নিয়ে যাবে।"

বিশেষজ্ঞ ইয়াও উল্লেখ্য করেন, বিশ্বের অনেক দেশ খাদ্য সংস্কৃতির ওপর বিশেষ গুরুত্ব দেয়। যেমন জাপান, জাপানিজ কুইসিন (Japanese cuisine) অবৈষয়িক কালচারাল হেরিটেজের জন্য আবেদন করেছে। লাতিন আমেরিকার অনেকেই মনে করেন যে, খাবার সংস্কৃতির প্রচারে জাপানের ভূমিকা কার্যকরী হয়েছে। সেজন্য চীনের ঐতিহ্যবাহী খাবারের তুলনায় লাতিন আমেরিকায় জাপানের খাবার অনেক বেশি জনপ্রিয়তা পেয়েছে। তা ছাড়া, দক্ষিণ কোরিয়া, ফ্রান্স, ইতালি ও মেক্সিকোসহ বিভিন্ন দেশ নিজেদের খাবার সংস্কৃতি প্রচারে ভূমিকা পালন করছে।

এ বিষয়ে সাধারণ মানুষের ধারণা কি ? চীনের এক রেস্তোরাঁর পরিচালক লাও ই বো বলেছে,

"এটি খুবই প্রয়োজনীয়। এ ধরনের সাংস্কৃতিক ইভেন্ট খুবই গুরুত্বপূর্ণ। কুয়াং তুংয়ের লোকেরা সচরাচর বিদেশ ভ্রমণ করলেও, স্পেন ভ্রমণে যাওয়া হয় না। আর স্প্যানিশ লোকেরা কুয়াং তুং'র সঙ্গে শুধু ব্যবসায়ীক যোগাযোগ রেখেছে। সেজন্য এবার তত্পরতার মাধ্যমে দু'পক্ষের পরস্পরের সমঝোতা অনেক বেড়েছে।"

স্প্যানিশ এক রেস্তোরাঁর পরিচালক অ্যালিতা (Alieta) বলেন,

"এ অনুষ্ঠানে অংশ নিতে পেরে আমি খুব খুশি। বিভিন্ন দেশের খাবার সংস্কৃতি সম্পর্কে জানার পর নিজের দেশের খাবার সংস্কৃতিকেও উন্নত করা যায়।"

কুয়াং চৌ-এ স্পেনের কনস্যুলেট জেনারেলের কন্সুলার ম্যানুয়েল পুমবো এ অনুষ্ঠানে অংশ নিতে পেরে বেশ আনন্দিত। তিনি এ অনুষ্ঠানে একটি পর্বে অংশ নিয়েছেন এবং কুয়াং তুং'র বিখ্যাত খাবার z রান্না করেছেন। তিনি বলেন,

"এবারের অনুষ্ঠান আমার মনে গভীর ছাপ ফেলেছে। আমি বিশ্বাস করি, এ কর্মসূচি অনেক সফল হবে। ভবিষ্যতে সাংস্কৃতিক বিনিময়ে এটি আরো বেশি অবদান রাখতে পারবে।"

সিআরআই'র উপ-সাধারণ সম্পাদক রেন ছিয়েন বলেন,

"কুয়াং তুংয়ে অনেক রকম সুস্বাদু খাবার রয়েছে। স্পেনেও অনেক রকম সুস্বাদু খাবার হয়। এগুলোর নিজস্ব বৈশিষ্ট্য আছে। খাবার বিষয়ক সাংস্কৃতিক বিনিময় দু'দেশের সাংস্কৃতিক সম্পর্ককে আরো ঘনিষ্ঠ করবে।" (জিনিয়া)

সংশ্লিষ্ট প্রতিবেদন
মন্তব্য
Play
Stop
ওয়েবরেডিও
বিশেষ আয়োজন
অনলাইন জরিপ
লিঙ্ক
© China Radio International.CRI. All Rights Reserved.
16A Shijingshan Road, Beijing, China. 100040